গরমে চুলের যত্ন

26.4.15


গরমের তীব্র দাবদাহে চুলের নানাবিধ সমস্যা দেখা যায়। এই সময় ঘামের পরিমাণ বেশী থাকায় তার সরাসরি প্রভাব পড়ে চুলের স্ক্যাল্পে। স্ক্যাল্পের ময়েশ্চারাইজার কমে যায়। ফলে চুল অনেক বেশী ডাল দেখায়। এইসময় চুলের গ্রোথ কমে যায়, চুলের আগাফাটা এই ধরনের সমস্যাও অনেক দেখা যায়। তাই এই মরশুমে নিজের চুলের খেয়াল রাখুন। কিছু খুব সাধারন টিপস ফলো করুন আর চুলের স্বাস্থ্য বজায় রাখুন। কি কি করবেন আর কি করবেন না -

ধুলোবালি ও সূর্যের আল্ট্রা ভাইলেট রে এই সময় আপনার চুলকে ড্যামেজ করে তুলতে পারে। তাই এই সময় মাসে তিনবার হেনা করুন। ৩০ মিনিটের মতো রেখে ধুয়ে নিন। এটি একটি লেয়ার গঠন করে। যাতে চুলের স্ক্যাল্প পর্যন্ত রে পৌঁছতে না পারে।



ঘরে থাকলে চুল খোলা রাখুন বেশির ভাগ সময় এতে চুলের গোঁড়ায় হাওয়া চলাচল করতে পারবে। আর ঘামও হবে না।


চুলের গোঁড়া বেশি ঘামলে গ্রিন টি আর লেবুর রস এর সঙ্গে মিশিয়ে লাগিয়ে রাখতে পারেন স্নানের আগে। পরে শ্যাম্পু করে নিন।


এই সময় প্রত্যেকদিন শ্যাম্পু করবেন না। কারণ শ্যাম্পু ন্যাচেরাল ময়েশ্চারাইজার কমিয়ে দেয়। সপ্তাহের দুদিন হার্বাল শ্যাম্পু করুন, একদিন ঘরে তৈরি শ্যাম্পু ব্যবহার করুন।


হট শাওয়ার বা গরম জলে স্নান যতটা পারবেন এড়িয়ে চলবেন।


এইসময় যতটা সম্ভব হার্বাল প্রোডাক্ট ব্যবহার করবেন। হার্বাল শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার এই সময় আপনার চুলের বিশেষ খেয়াল রাখবে।

সপ্তাহে দুদিন রাতে শোবার আগে চুলে অয়েল ম্যাসাজ করবেন। এটি আপনার চুলে পুষ্টির কাজ করবে।
মাসে একবার হট ওয়েল মাসাজ করুন গোটা চুলে।

সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মি থেকে চুলকে রক্ষা করচে গরমে ছাতা অথবা স্কার্ফ ব্যবহার করবেন।

সপ্তাহে একদিন করে হেয়ার রিপেয়ার প্রোটিন মাস্ক ব্যবহার করবেন। এটি আপনার চুলকে সূর্যের রশ্মি থেকে অনেকটা সময় রক্ষা করবে ও চুলের গ্রোথ বাড়াবে।

গরমের সময় প্রচুর পরিমাণে জল খাবেন। এটি আপনার শরীরের জলের লেভেলকে ঠিক রাখবে। যা আপনার চুলের গ্রোথ বাড়াতে ও চুল ওঠা কমানোর জন্য ভীষণভাবে প্রয়োজন। পাশাপাশি যে কোন একটি বা দুটি ফল।

You Might Also Like

0 comments

Contact Form

Name

Email *

Message *

Translate

Followers

Labels